মাসকুর-এ-সাত্তার কল্লোল

Posted on Posted in 2017, Bakul20170303

নাসিমা খান বকুল তার পোশাকী নাম। আমরা যারা আবৃত্তি নগরে বসবাস করি, তাকে বকুল বলেই ডাকি, চিনি। প্রয়োগশিল্পে এটা প্রায় সত্য বলেই ধরে নেয়া হয়েছে, মেয়েরা আসবে, কেউ কেউ খুবই সম্ভাবনাময় হয়ে উঠবে, তারপর হারিয়ে যাবে বিস্মৃতির অতলে। কারণটা বোধ করি আমাদের জানা আছে। কিন্তু বকুল এই ‘প্রায় সত্যের’ সিমানার বাইরে। ও পঁচিশ বছর ধরে আবৃত্তির সঙ্গে গেরোস্থালী করেছে ভালবাসা, মমতা, সৃজন আর অবিরত চর্চার সঙ্গে সখ্যতা করে।
বকুল কর্মজীবনে দায়িত্বশীল পদে থেকেও সংগঠন চর্চা, রাজপথে মিছিলে শ্লোগানমুখর আবৃত্তি অনুষ্ঠান সমূহে নিয়মিত উপস্থিতিতে আমাদের অনেককেই অতিক্রম করেছেÑ আবৃত্তর প্রতি গভীর অনুরাগ থেকেই। বকুল স্বভাবে স্বল্পভাষী, কিন্তু তার বিশ্বাস, আদর্শ আর চেতনার সঙ্গে আপোষ করে নিশ্চুপ থেকেছে তেমনটি দেখিনি।
তিন মার্চ শুক্রবার খড়কুটোয় স্বপ্ন দেখা আবৃত্তিশিল্পীর আবৃত্তি শুনতে আমরা সমবেত হব মিলনায়তনে। শব্দের বুননে আর কণ্ঠের দিপ্তীতে হিরন্ময় ঔজ্জ্বল্যে বকুলের স্বপ্নের সঙ্গে মিলিয়ে নেব আমাদের দেখাÑ অদেখা স্বপ্নগুলো।
জয়তু আবৃত্তি। জয়তু বকুল। জয়তু মুক্তধারা আবৃত্তি চর্চা কেন্দ্র।